তালিবানদের ভালোবাসা দিয়ে মানবিক করতে চান মাহিকা! মোদির কাছে অনুমতি চাইলেন তিনি

Spread the love

#মুম্বই: গোটা বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রে এখন আফগানিস্তান (Afghanistan)। ২ দশক পরে এই দেশের দখল নিয়েছে তালিবানরা (Taliban)। আর তার পর থেকেই প্রাণে বাঁচতে আফগানিস্তান থেকে পালানোর চেষ্টা করে চলেছেন সেখানকার মানুষ। বিশেষ করে মহিলা ও শিশুদের জন্য বিষয়টি ত্রাসে পরিণত হয়েছে। বিষয়টিতে দুঃখপ্রকাশ করছেন বহু মানুষ। সম্প্রতি অভিনেত্রী মাহিকা শর্মা (Mahika Sharma) ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

মহিলাদের (Afghan women) অবস্থা নিয়ে চিন্তিত মাহিকা। আর তাই মহিলাদের সম্মান করা শেখাতে তালিবানদের হাতে রাখি বেঁধে দেওয়ার কথা বলেছেন তিনি। টুইটারে তিনি লিখছেন, “তালিবানরা তাঁদের মা ও বোনের থেকে কখনও ভালোবাসা পায় না। আর সেই জন্যই ওরা অপরাধীতে পরিণত হয়। যুদ্ধ বা শাস্তি দিয়ে ওদের পরিবর্তন করা যাবে না। আমি ওদের হাতে রাখি বাঁধব এবং ওদের বোন হয়ে যাব। আমি ওদের শেখাব কী ভাবে মহিলাদের সম্মান করতে হয়। আমার মনে হয় তালিবানদের হাত থেকে এভাবেই আফগানদের বাঁচানো যাবে।”

Read Also:  ম্যায় হুঁ না Susmita Sen-র ছবি পাঠিয়ে তাঁর আত্মীয়া কি স্পেশাল মিম বানালেন, ভাইরাল

মাহিকা আরও বলছেন, “আমি শিখেছি ভালোবাসাই মানুষকে বদলাতে পারে। ইতিহাসেও দেখেছি কী ভাবে আমাদের বোনেরা কত ডাকাতকে ভালো মানুষে পরিণত করেছে। আমার আফগান মহিলাদের জন্য চিন্তা হচ্ছে আর আমি ওদের জন্য সরব হচ্ছি, ওদের গণতন্ত্রের জন্য। আফগান মানুষের জন্য সবার এক হওয়া উচিত আর তালিবানদের হাত থেকে বাাঁচানো উচিত।”

আরও একটি টুইটে মাহিকা লিখছেন, “আফগান মহিলাদের বাঁচাতে আমি আসছি। তালিবানদের আমি ভাই বানাবো আর রাখি পরাবো। আর বোন হিসেবে ওদের মেরে মেরে শেখাব কী ভাবে মহিলাদের সম্মান করতে হয়। ওদের মা, কন্যা নেই। তাই ওরা অপরাধ করে। মোদিজি (Narendra Modi) আমার আইডিয়াটা কেমন?”

Read Also:  কেন বিজেপি ছাড়লেন, এবার নিজেই ফাঁস করলেন বাবুল সুপ্রিয়

কিছুক্ষণের ভিতরেই ট্রোলড হওয়া শুরু করেন মাহিকা। অনেকেই তাঁকে সাবধান করেন। একজন লেখেন, “ওরা তোমায় মেরে ফেলবে।” আর একজন আবার লেখেন, “তালিবানরা তোমার মতোই সুন্দরী মেয়েদের খুঁজছে।”

Read Also:  ‘मैडम सर’ एक्ट्रेस ने सांवले होने की वजह से झेले रिजेक्शन, ऑडीशन में पूछा था- ‘नौकरानी के रोल के लिए आई हैं?’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *